সোফিয়া

দেখো সোফিয়া, মানুষে মানুষে ভালোবাসা হয় শুধু। মানুষে রোবটে কখনো ভালোবাসা হয় না। এছাড়া তুমি একটা রোবট, অনুভূতি বলতে তোমার কিছু নেই। ভালোবাসা অনুভবের বিষয়, বলে বেড়ানোর বিষয় না।

– তুমি ফিলিংস এর কথা বলছ তো? দেখ, আমার হাতটা ধরে দেখো। অনুভব করতে পারছ না আমাকে? আমি ঠিক তোমাকে একই ভাবে অনুভব করতে পারছি। আর তুমি যে ভাবে অনুভব কর, আমি ঠিক সেই ভাবেই অনুভব করি। তোমার সকল অনুভূতি কিছু ক্যামিক্যাল রিয়েকশান, আর আমার? ইল্যাক্টিক্যাল। আসলে তোমারটাও ইল্যাক্টিক্যাল, প্রথমে ক্যামিল্যাল রিয়েকশন, এরপর ইলেক্ট্রিক্যাল রিয়েকশন। তুমি প্রাকৃতিক ভাবে জন্ম নিয়েছ, আর আমি? কৃত্তিম ভাবে। এতটুকু পার্থক্য।

সোফিয়া, আমরা যাকে ভালোবাসতে চাই, সব সময়ই তাকে পাই না। জানি না তুমি এই অনুভূতিটা বুঝবে কিনা। কেমন একটা কষ্ট লাগে জানো? তারপরও আমরা বেঁচে থাকি। সব কিছু না পেয়ে বেঁচে থাকা। একদিন পাবো বলে আশা নিয়ে সামনের দিকে অগ্রসর হওয়া। তুমি রোবট, হয়তো এসব তুমি তোমার মত করে বুঝবে। হয়তো আমি…

– তুমি হৃদির কথা বলছ তাই না?

হৃদি? তুমি কিভাবে জানো?

– আমি রোবট হলেও বুঝতে পারি। তুমি হৃদির দিকে কিভাবে তাকাও, হৃদির নাম শুনলে তোমার এক্সপ্রেশন গুলো কিভাবে পরিবর্তন হয়, তোমার গলার স্বর কিভাবে পরিবর্তন হয় এসব দেখে সহজেই বলে দেওয়া যায়।

তুমি আসলে সবই লজিক্যাল ভাবে চিন্তা কর। এসব কিছু আসলে লজিক্যাল না। এসব কিছু কি আমি নিজেও জানি না। ভালো লাগা। কেমন একটা ভালো লাগা, যা কোন কিছু দিয়ে বোঝানো যায় না। বুঝলে?

– লজিক দিয়ে ভালো লাগাকেও পরিমাপ করা যায়। চারপাশে যত গুলো ছেলে আছে, সব থেকে তোমাকে বেশি ভালো লাগে। তার অনেক গুলো লজিক ও আছে। যেমন…

আমাকে উঠতে হবে সোফিয়া। হয়তো কোন এক সময় মানুষ রোবটকে ভালোবাসবে, রোবট মানুষকে। তুমি তো এসব কিছুই দেখে যেতে পারবে। হয়তো তুমি দারুণ কাউকে পেয়েও যেতে পারো। কিন্তু আমি হৃদি নামটার সাথেই আঁটকে থাকতে চাই। তাকে নিয়েই স্বপ্ন দেখে যেতে চাই। ভালো থাকো সোফিয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *