এনালগ সিস্টেম এবং ডিজিটাল সিস্টেম।

Digital: ডিজিট(Digit) শব্দ থেকে আসছে ডিজিটাল(Digital)। Digit মানে হচ্ছে সংখা। এটি দ্বারা বিচ্ছিন্ন গণণা করা হয়। এ টপিক্সটি কম্পিউটার ও ইলেক্ট্রনিক যন্ত্রে ব্যবহৃত হয় যেখানে স্বাভাবিক সংখা বা স্বাভাবিক তথ্যকে বাইনারি সংখাতে রুপান্তরিত করতে হয়। আমরা ডিজিটাল বলতে একটি ডিজিটাল সিস্টেমকে বুঝি যা হচ্ছে বিচ্ছিন্ন মান নিয়ে গঠিত একটি তথ্য প্রযুক্তি। এখন এর সাথে এনালগের কথা বললে আপনাদের বুঝতে সুবিধা হবে। এনালগ সিস্টেম হচ্ছে অবিচ্ছিন্ন মান নিয়ে গঠিত সিস্টেম। এখন পর্যন্ত মনে আপনাদের কিছুই বুঝাতে পারিনি। এবার একটু চেষ্টা করে দেখি। এনালগ ও ডিজিটাল এর পার্থ্যক্য দিলেই মনে হয় সহজে বুঝতে পারবেন।

মনে করুন আপনার হাতে একটি পাইপ আছে, যা একটি কল বা টেপ এর সাথে যুক্ত। এবার আপনি টেপটি ছেড়ে দিয়েছেন ফলে পাইপের মুখ দিয়ে পানি বের হবে। এখন পানির যথেষ্ট পরিমান স্পীড আছে মনে করুন এবং পাইপের মুখে দিয়ে পানি ক্রমাগত বের হচ্ছে। এ ক্রমাগত পানি বের হওয়াই হচ্ছে অবিচ্ছিন্ন বা এনালগ সিস্টেম। এখন আপনি মুখ একবার বন্ধ করেন আবার খুলেন। তাহলে দেখবেন পানি ও এক বার বের হয় আবার বের হয় না। আর এটাই হচ্ছে বিচ্ছিন্ন বা ডিজিটাল সিস্টেম।

উপরের উদাহরনে আপনারা ডিজিটাল ও এনালগ কি তা বুঝার কথা।  ডিজিটাল সম্পর্কে জানতে হলে এনালগ ও চলে আসে তাই এ চেষ্টা। আপনার একটি দেওয়াল গড়ি রয়েছে। যা কাঁটা দিয়ে সময় প্রকাশ করে। আর আপনার হাতে একটি ঘড়ি রয়েছে যা সংখা দিয়ে সময় প্রকাশ করে। এখন আপনি একটু তুলনা করুন। দুটি ঘড়ির সময় একই। কিন্তু সময় দেখানো নিয়ে একটু সমস্যা রয়েছে।

ডিজিটাল ঘড়িকি আপনাকে সময়ের ভগনাংশ দেখায়? মনে করুন আপনার হাতে একটা ডিজিটাল ঘড়ি আছে। ঘড়িতে এখন বাজে ১০টা১০ মিনিট ১০ সেকেন্ড। দেয়ালে একটা এনালগ ঘড়ি আছে ঐটাতেও একই সময়। এক সেকেন্ড পর আপনার হাতের ডিজিটাল ঘড়িতে হবে ১০ টা ১০ মিনিট ১১ সেকেন্ড। মাঝখানের সময়ের ভগনাংশ কিন্তু ডিজিটাল ঘড়ি দেখাতে পারে নি। কিন্তু এনালগ ঘড়িতে প্রতি মুহুর্তেই মান পাওয়া যায়। আর ডিজিটাল সিস্টেমে একটা নির্দিষ্ট সময় পর পর মান পাওয়া যায়।

 


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *